Md Rasel Uddin Joy

September 15, 2021 0 By JAR BOOK

কবি ও লেখক পরিচিতি

Md Rasel Uddin Joy

Student

House no-37,Road -2,Mousumi Abasik,Pahartoli, Chittagong.

চুলে প্রেমের এলার্জি


বিস্তীর্ণ চুল উড়ন্ত পতাকার মতো হৃদয় টিনে দোল খেতে খেতে আমার মনে প্রেমের ফোঁড় তুলে। ঘ্রাণের অদৃশ্য সুতো আর মায়া’র সুঁই বিঁধে আমার ভালোবাসা হয় রক্তাক্ত।


প্রেমের ফণা বিষধর সাপের চেয়েও তীব্র ছোবল দিতে পারে,সেটা আমি কল্পনার আইসিউতে না থাকলে বুঝতাম না। গিঁট বেধেও এই বিষাক্ত প্রেম সারানো যায় না । শ্যাম্পুস্নাত চুলের মোহ প্রেমের সমিতিতে ভালোবাসা সঞ্চয়  করতে থাকে।  দীর্ঘ চুলের মেয়েরা প্রেমের সঞ্চয় সমিতির পরিচালক, আর তাদের চুলের ঘ্রাণে আক্রান্ত হওয়া পুরুষরা ঋণগ্রস্ত প্রেমিক।


অলস কুণ্ডলীর গায়ে ভাসা দুই এক গোছা চুল,অবাধ্য গতিতে উড়ছে তো উড়ছে, কেবল আকাশের দিকে ছুটছে। 

মেঘের গোমটায় ঢেকে থাকে সূর্যের নজর, সূর্য প্রেমের চিঠি দেয় শীতের ডাকবাক্সে,কেবল উষ্ণতার গালিচা বিছিয়ে প্রেম নিবেদন। 

মেয়েরাও শীতের সূর্যতে ক্ষণিকেই পটে যায়। শীতের সূর্য মানুষের চেয়েও প্রেমরোগা,মেঘের ঘোমটা ছিড়ে লুটে পড়ে মেয়েদের চুল শুকানোর আঙ্গিনায়,অবশেষে শীতের ক্যাম্পাসে সূর্য তার প্রেমিক।


গাত্রমার্জনী তোয়ালেও চুলের প্রেমিক,তবে তার ভীষণ কদর। 

সূর্য কিরণ দিয়ে লুটে পড়ে, আমার মনকণ্ঠে শুধু ঘ্রাণ পেতে আহ্বান, অথচ গাত্রমার্জনী তোয়ালে না চাইতে চুলের আলিঙ্গন।

 চুলের ডগায় আটকে থাকা সুগন্ধি জল,তোয়ালের শরীরে কাম্পিল্যের আস্তর লেগে যায় । 

শুধু চুলের শুকনো ঘ্রাণ পুকুর পাড়ে বৃক্ষের গায়ে লেগে থাকে,মাঝেমাঝে বৃক্ষের নাক ফুটো হয়ে আমার নাকে এসে প্রেমের বড়শি ফেলে। আর তখনি আমার মনে প্রেমের ভূমিকম্প সৃষ্টি হয়। সেই থেকে চুলে আমার প্রেমের এলার্জি।


✍️মোহাম্মদ রাসেল উদ্দীন জয়”